ঢাকা | শুক্রবার | ২৫ মে, ২০১৮ | ১১ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ | ৯ রমযান, ১৪৩৯ | রাত ৮:৪৩ | English Version | Our App BN | বাংলা কনভার্টার
  • Main Page প্রচ্ছদ
  • বিদেশ
  • বাংলাদেশ
  • স্বদেশ
  • ভারত
  • অর্থনীতি
  • বিজ্ঞান
  • খেলা
  • বিনোদন
  • চাকরির সংবাদ
  • ♦ আরও ♦
  • সংবাদপত্র
  • সেহরি ও ইফতার | রমজান-৮ | বিস্তারিত...

    সেহরির শেষ সময় : ভোর ৩:৪২

    ইফতার : সন্ধ্যা ৬:৪২



    ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

    নির্বাচনের নামে জাতির সঙ্গে আবারও তামাশা: সৈয়দ রেজাউল করীম
    এনবিএস | Wednesday, May 16th, 2018 | প্রকাশের সময়: 9:38 pm

    নির্বাচনের নামে জাতির সঙ্গে আবারও তামাশা: সৈয়দ রেজাউল করীমনির্বাচনের নামে জাতির সঙ্গে আবারও তামাশা: সৈয়দ রেজাউল করীম

    বিগত নির্বাচনগুলোর মত খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনেও সীমাহীন ভোট ডাকাতি, জালভোট প্রদান ও কেন্দ্র দখলের মত ঘটনা ঘটিয়ে নির্বাচনের নামে সরকার জাতির সাথে আবারো তামাশা করেছে বলে মন্তব্য করেছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। 

    মুফতী সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেন, বিগত নির্বাচনগুলোর মত গতকালের নির্বাচনেও ভোট ডাকাতির দৃষ্টান্ত স্থাপন করলো সরকার। খুলনা সিটি নির্বাচন নিয়ে জাতি আশা করেছিল সরকার একটি স্বচ্ছ ও সুন্দর নির্বাচন উপহার দিয়ে জাতিকে অচলাবস্থা থেকে বের করে আনবে। কিন্তু যা ঘটলো তাতে রাজনৈতিক সহিংসতা বাড়বে ছাড়া কমবে না। জাতি অবাক বিস্ময়ে দেখেছে যে, ভয়াবহ ভোট ডাকাতি, জালিয়াতী, কেন্দ্র দখলের ঘটনা ঘটেছে এবং ইসলামী আন্দোলনের এজেন্টসহ বিরোধী দলের এজেন্টদের কেন্দ্র থেকে বের করে দিয়ে নির্বাচনের মাজা ভেঙ্গে দেওয়া হয়েছে। 

    তিনি বলেন,  নির্বাচনের আগের রাত থেকে সাধারণ ভোটারদের মাঝে আতঙ্ক ছড়ানোর জন্য সর্বত্র বহিরাগত ও দলীয় ক্যাডাররা মহড়া দিতে থাকে, যা সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য অন্তরায়। 

    তিনি আরও বলেন, অনেক হাতপাখার কাউন্সিলর নিজে ও তার পরিবার ভোট দিতে পারেনি। নির্বাচন কমিশনের মত একটি সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানকে সরকার ধ্বংস করে দিয়ে নির্বাচন কমিশনকে আজ্ঞাবহ ও দলীয় কমিশনে পরিণত করেছে। নির্বাচনে জনগণের আগ্রহ ও ইচ্ছাকে ধুলিসাৎ করে দেওয়া হয়েছে। ভবিষ্যতে নির্বাচন দিয়ে আর ভোটারদের কোন আগ্রহ থাকবে না। এ ধরণের প্রহসনমূলক নির্বাচনের ফলে আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মও ভোটের প্রতি অনীহা প্রকাশ করবে ফলে দেশ ক্রমেই ভয়াবহ সহিংসতার দিকে ধাবিত হবে। জনগণ তাদের পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পারেনি, এতে করে জনগণের সাংবিধানিক মৌলিক অধিকার প্রয়োগ করতে ব্যর্থ হয়েছে। 

    পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, নির্বাচনের নামে সরকার জাতির সাথে তামাশা করেছে। এতে করে আবারো প্রমাণিত হলো দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে পারে না। কাজেই সংবিধানে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিল পুনরায় সংযোজন করতে হবে এবং বর্তমান নির্বাচন কমিশন সরকারের আজ্ঞাবহ ও পুতুল হিসেবে পরিচয় দেওয়ায় অবিলম্বে সিইসির পদত্যাগ দাবি করছি। 

    পীর সাহেব চরমোনাই আরও বলেণ, এভাবে নির্বাচন দিয়ে দেশ-জাতির কোন উন্নতি হবে না। গণতন্ত্রের নামে স্বৈ^রতন্ত্র চলছে। তিনি বলেণ, যারা এভাবে ভোট ডাকাতি করে, তারাই জনগণের সম্পদক ডাকাতি করে। স্বাধীনতার পর থেকে বর্তমান পর্যন্ত এসবই দেখেছে দেশবাসি।

       


    আপনার মন্তব্য লিখুন...
    Delicious Save this on Delicious

    nbs24new3 © সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
    নিউজ ব্রডকাস্টিং সার্ভিস - এনবিএস
    ২০১৫ - ২০১৮

    উপদেষ্টা সম্পাদক : এডভোকেট হারুন-অর-রশিদ
    প্রধান সম্পাদক : মোঃ তারিকুল হক, সম্পাদক ও প্রকাশক : সুলতানা রাবিয়া,
    প্রধান প্রতিবেদক : এম.এ. হোসেন, বিশেষ প্রতিবেদক : ম.খ. ইসলাম
    চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান : মোঃ রাকিবুর রহমান
    ৩৯, আব্দুল হাদি লেন, বংশাল, ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ।
    ফোন : +৮৮ ০২ ৭৩৪৩৬২৩, +৮৮ ০১৭১৮ ৫৮০ ৬৮৯
    Email : nbs.news@hotmail.com, news@nbs24.org

    ইউএসএ অফিস: ৪১-১১, ২৮তম এভিনিউ, স্যুট # ১৫ (৪র্থ তলা), এস্টোরিয়া, নিউইর্য়ক-১১১০৩, 
    ইউনাইটেড স্টেইটস অব আমেরিকা। সেল: ৯১৭-৩৯৬-৫৭০৫।

    Home l About NBS l Contact the NBS l DMCA l Terms of use l Advertising Rate l Sitemap l Live TV l All Paper

    এনবিএস-এর লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি. - Privacy Policy l Webmail