ফুসফুস বাঁচাতে টমেটো ও আপেল খান
Breaking News
Home » জীবনধারা » ফুসফুস বাঁচাতে টমেটো ও আপেল খান

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

ফুসফুস বাঁচাতে টমেটো ও আপেল খান
এনবিএস | সোমবার, এপ্রিল ১৬, ২০১৮ | প্রকাশের সময়: ৬:৫৪ অপরাহ্ণ

ফুসফুস বাঁচাতে টমেটো ও আপেল খানফুসফুস বাঁচাতে টমেটো ও আপেল খান

ইবনে সীনা বলেছিলেন, ধুলো-বালির হাত থেকে ফুসফুসকে যদি রক্ষা করা যেত তাহলে মানুষের আয়ুষ্কাল দীর্ঘকাল ব্যাপী হতো। কিন্তু মানব সৃষ্ট দূষণের ফলে দিন দিন পরিবেশের যে অবস্থা হচ্ছে তাতে মানুষের ফুসফুসকে রক্ষা করাই কঠিন। এছাড়াও দীর্ঘদিন ধরে ধূমপান করতে গিয়ে ফুসফুসের বারোটা বাজিয়েছেন? চিন্তা নেই, শরীরের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এই অঙ্গটিকে সুস্থ্য করে তোলার পথ বের করেছেন বিজ্ঞানীরা। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি’র এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে ক্ষতিগ্রস্থ ফুসফুসকে আবারও সতেজ করে তুলতে টমেটো আর আপেলের জুড়ি নেই।

সাধারণত অতিরিক্ত ধূমপানের ফলে ফুসফুসের ক্যান্সারসহ নানা রোগ হতে দেখা যায়। ফুসফুস ক্ষতিগ্রস্থ হলে তা আগের অবস্থায় ফিরিয়ে আনা প্রায় অসম্ভব। কিন্তু পশ্চিমের একদল বিজ্ঞানী সম্প্রতি দাবি করেছেন, এতদিন জানা ছিল না তাই মনে হয়েছিল যে অসম্ভব। কিন্তু ফুসফুসকে আগের অবস্থায় ফিরিয়ে আনা সত্যিই সম্ভব!

তাদের মতে, নিয়মিত টমেটো আর আপেল খেলে ক্ষতিগ্রস্থ ফুসফুস আবারও সতেজ হয়ে উঠতে পারে। তাদের এই গবেষণা প্রতিবেদন ইউরোপের একটি বিজ্ঞান সাময়িকীতে প্রকাশও পেয়েছে।

সেখানে বলা হয়েছে, দীর্ঘদিন ধরে ধূমপান করা ব্যক্তিদের উপর পরীক্ষা চালিয়ে দেখা গেছে যারা নিয়মিত আপেল এবং টমেটো খান তাদের ফুসফুসের অবস্থা অনেকটাই ভালো হয়ে উঠেছে। বিজ্ঞানীরা আরও জানিয়েছেন, অতিরিক্ত শর্করাযুক্ত খাবার খেলেও ফুসফুসের সতেজতায় ঘাটতি হতে পারে।

তাই ফুসফুসকে ভালো রাখতে হলে, অতিরিক্ত শর্করাযুক্ত খাবার পরিহার করে ফল ও শাক সবজি বেশি খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তারা। সেই সঙ্গে দ্রুত ফল পেতে ধূমপান সম্পূর্ণ বর্জনের পরামর্শও দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, টমেটো’তে প্রচুর পরিমাণে এন্টিঅক্সিডেন্ট থাকে যা হৃদপি-ের সংক্রমণ এমনকি ক্যান্সার থেকেও সুরক্ষা দেয়। এছাড়া ফলটিতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি, ফলিক এসিড, ভিটামিন বি এবং কে। আপেলেও রয়েছে ভিটামিন সি। সঙ্গে রয়েছে কোরসেটিন’এর মতো এন্টিঅক্সিডেন্ট যা ফুসফুসে প্রচুর অক্সিজেন সরবরাহে সাহায্য করে থাকে।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

Translate »