ঢাকা, শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১১:৫৯ পূর্বাহ্ন
বাতিল তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৬এ ধারা নিয়ে ফের সরব সুপ্রিম কোর্ট, নোটিশ সমস্ত রাজ্যকেই
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৬ এ ধারা নিয়ে কিছুদিন আগেই সুপ্রিম কোর্টের তোপের মুখে পড়েছিল কেন্দ্র সরকার। বেশ কয়েক বছর আগেই খারিজ হয়ে গিয়েছিল তথ্যপ্রযুক্তি আইনের এই ধারা। তারপরেও এর ব্যবহার নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করতে দেখা যায় শীর্ষ আদালতকে। অবশেষে খোদ সুপ্রিম কোর্টের তরফে এবার এই ইস্যুতে নোটিশ পাঠানো হল সমস্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে।

এমনকী এই বিষয়ে আগামী ৪ সপ্তাহের মধ্যে সমস্ত রাজ্যকেই তাদের মতামত জানাতে বলা হয়েছে। এদিকে টানাপোড়েন চলছে গত মাস থেকে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের মার্চেই বাতিল হয়েছে যায় ভারতীয় তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৬ এ ধারা। কিন্তু তারপরেও পুলিশ কিকরে এই আইন বলে অভিযোগ নিচ্ছে সেই বিষয়ে বিস্ময় প্রকাশ করে সুপ্রিম কোর্ট। এমনকী এই ঘটনায় বিচারপতি আরএফ নরিম্যানের নেতৃত্বাধীন সুপ্রিম কোর্টের বেঞ্চ কড়া ভাষায় কেন্দ্রের সমালোচনাও করে।
পরবর্তীতে এই মামলাগুলি দেখার জন্য বরিষ্ঠ আইনজীবী সঞ্জয় পারিখ বিশেষ অনুরোধ জানান শীর্ষ আদালতের কাছে। আর তারপরেই বিচারপতিদের তরফে জানানো হয় দ্রুত তারা এই বিষয়ে হস্তক্ষেপ করবে। প্রয়োজনে জারি করা হতে পারে নোটিশ। অবশেষে সেই কাজই করে ফেললেন সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিরা। এদিকে আইটি আইন ২০০০-এর ৬৬ এ ধারায় বলা হয়েছে অনলাইনে আক্রমণাত্মক মন্তব্য, কোনও সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট শাস্তিযোগ্য অপরাধ। এমনকী এই কাজ করলে তিন বছরের কারাদণ্ডও হতে পারে।
এদিকে পরিসংখ্যান বলছে, এই ধারা ৭ বছর আগে খারিজ হয়ে যাওয়া সত্ত্বেও ১১ রাজ্যের জেলা আদালতগুলিতে ২০২১-র মার্চ পর্যন্ত এমন ৭৪৫ টি মামলা রয়েছে। আর প্রতি ক্ষেত্রেই তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৬৬ এ ধারাতেই হয়েছে মামলা। কিছুদিন আগেই পিইউসিএলের দায়ের করা আর্জিতে এই তথ্যের উল্লেখ করা হয়। তারপরই এই ইস্যুতে নড়েচড়ে বসে সুপ্রিম কোর্ট। দেশজুড়ে শুরু হয় তীব্র চাপানৌতর। এমনকী এই আইনের অপব্যবহার নিয়েও ওঠে প্রশ্ন।
অন্যদিকে জেনে রাখা ভালো ইন্টারনেট ফ্রিডম ফাউন্ডেশনের সংগৃহীত তথ্যের জোরেই চলছে গোটা মামলা। এদিকে পরিংসখ্যান এও বলছে ২০১৫-র শ্রেয়া সিঙ্ঘল মামলায় ৬৬এ ধারা বাতিল হওয়ার পরেও এখনও পর্যন্ত এই ধারা বলে ১,৩০৭ টি মামলা দায়ের করা হয়েছে গোটা দেশে। যা কোর্টের চোখে বেআইনি। যা নিয়ে সোমবার নতুন করে উদ্বেগও প্রকাশ করতে দেখা যায় অ্যাটর্নি জেনারেল কেকে বেণুগোপালকে।
খবর ওয়ান ইন্ডিয়ার 
এনবিএস ২০২১/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *