ঢাকা, শনিবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০১:৩৪ পূর্বাহ্ন
নিজের জন্ম ও বিয়ে নিয়ে যে তথ্য লুকিয়েছেন কিম জং উন
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

নিজের জন্ম ও বিয়ে নিয়ে যে তথ্য লুকিয়েছেন কিম জং উন

উত্তর কোরিয়ার সর্বাধিনায়ক কিম জং উন নিজেকে নিয়ে র’হস্য সৃষ্টি করতে ভীষণ পছন্দ করেন। কিমের তৈরি সর্বশেষ র’হস্য মা’থা ঘুরিয়ে দিয়েছে বিশ্ববাসীর। হঠাৎ করেই গা ঢাকা দিয়েছেন কিম জং উন। তাঁর বর্তমান অবস্থান নিয়ে কোনো সুস্পষ্ট ত্থ্য পাওয়া যায় নি তবে শোনা যাচ্ছে, কিমের কয়েকজন দেহরক্ষী করো’না ভাই’রাসে আ’ক্রান্ত হওয়ায় কিম ভ’য় পেয়েছেন নিজেকে করো’নার হাত থেকে বাঁ’চাতে উত্তর কোরিয়ার রাজধানী পিয়ংইয়ং ছেড়ে তিনি আশ্রয় নিয়েছেন পার্বত্য অঞ্চলে। অবশ্য এমন র’হস্য সৃষ্টি কিমের জন্য নতুন নয়। নিজের জন্ম, পড়াশোনা ও বিয়ে নিয়েও কিম বিছিয়েছেন র’হস্যের জাল।

তার জন্মের সাল এবং তারিখ নিয়ে ধোঁয়াশার সৃষ্টি করেছেন কিম নিজেই। কোথাও বলা হয় কিমের জন্ম ১৯৮২ সালে। কোথাও আবার ১৯৮৩। এমনকি কোথাও কোথাও কিমের জন্মের সাল ১৯৮৪ ও করা হয়েছে।

১৯৯৮ থেকে ২০০০ সাল অবধি সুইজারল্যান্ডের বিখ্যাত পাবলিক স্কুলে পড়াশোনো করেন। উত্তর কোরিয়ান দূতাবাসে তার রেজিস্ট্রেশন অবশ্য হয়েছিল ভিন্ন নামে। অর্থাৎ কিম জং উন নিজের পরিচয় গো’পন করে পড়াশোনা করেছেন।

ছবি দেখে কিম বা উত্তর কোরিয়ার তরফে বিষয়টি স্বীকার না করা হলেও, তার ওই সময়ের সহপাঠীরা এখন হলফ করে বলেন যে তাদের বন্ধুই এখন বিশ্বের অন্যতম ক্ষমতাধর এক রাষ্ট্র নায়ক। পাশাপাশিই কিম জং উনের সহপাঠীরা এ-ও বলেন যে, ছাত্র হিসেবে মোটেই ভালো ছিলেন না উত্তর কোরিয়ার দোর্দ’ণ্ডপ্রতাপ শাসক। যদিও পদার্থবিজ্ঞান এবং অর্থনীতিতে ডিগ্রি রয়েছে কিম জং উনের।

২০০৯ সালে কিছুটা লুকোছাপা করেই রি সোল জু-কে বিয়ে করেছিলেন উত্তর কোরিয়ার শাসক কিম। দেশের মানুষও কিমের বিয়ের কোনো খবর পাননি। তবে সেই সময়ে নানান সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী, বিয়ের দিন স্ত্রী’কে অ’ত্যন্ত ব্যয়বহুল একটি উপহার দিয়েছিলেন কিম জং উন। আর সেটি ছিল একটি হ্যান্ডব্যাগ। হ্যান্ডব্যাগ হলে কী’ হবে? সেই ব্যাগ বিখ্যাত সংস্থা ক্রিশ্চিয়ান ডায়ারের। হান্ডব্যাগটির দাম প্রায় ১৪৫৭ ডলার। অর্থাৎ বাংলাদেশী টাকার মূল্যে সেই ব্যাগের দাম প্রায় ১ লাখ ২৩ হাজার টাকার বেশি।

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *