ঢাকা, সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০২:০৮ পূর্বাহ্ন
শরীর দুর্বল হলে কোভিডের বুস্টার ডোজ দিতে অনুমোদন আমেরিকায়
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

শরীর দুর্বল হলে কোভিডের বুস্টার ডোজ দিতে অনুমোদন আমেরিকায়

 গত কয়েক মাসে কোভিড সংক্রমণ বেড়েছে আমেরিকায়। সেই সঙ্গে বাড়ছে মৃত্যু। চিকিৎসকরা স্থির করেছেন, যদি কোনও ব্যক্তির শরীরে রোগ প্রতিরোধী শক্তি কম থাকে, তাঁকে কোভিডের দু’টি ডোজের পরে একটি বুস্টার ডোজ দেওয়া হবে। বৃহস্পতিবার মার্কিন সরকারও বুস্টার ডোজ দেওয়ার অনুমতি দিয়েছে। আমেরিকার ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনস্ট্রেশন (এফডিএ) রেগুলেটর জানিয়েছে, প্রয়োজনে ফাইজার-বায়োএনটেক ও মোডার্না ভ্যাকসিনের তৃতীয় ইঞ্জেকশন দেওয়া যাবে।

এফডিএ কমিশনার জ্যানেট উডকক এক বিবৃতিতে বলেছেন, “আমাদের দেশ কোভিড অতিমহামারীর আর একটি ওয়েভের কবলে পড়েছে। যাঁদের প্রতিরোধ শক্তি কম, এই পরিস্থিতিতে তাঁদের কোভিডে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।” এর আগে ইজরায়েলে ভ্যাকসিনের বুস্টার ডোজ দেওয়ার প্রস্তাব অনুমোদন করা হয়েছে। তৃতীয় ডোজ নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরে আমেরিকায় বিতর্ক চলছিল। মার্কিন মিডিয়ার খবরে জানা যায়, অন্তত ১০ লক্ষ আমেরিকান প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য বেআইনিভাবে তৃতীয় ডোজ নিয়েছেন।


আমেরিকায় কোভিডে ৬ লক্ষ ১৯ হাজার মানুষ মারা গিয়েছেন। ডেল্টা ভ্যারিয়ান্টের জন্য গত কয়েক মাসে সেদেশে সংক্রমণ ব্যাপক বেড়েছে। আমেরিকার দক্ষিণ ও পশ্চিমাঞ্চলের মধ্যভাগে টিকাকরণ হচ্ছে ধীর গতিতে। সেখানে বহু লোক রক্ষণশীল রাজনীতিতে বিশ্বাস করেন।

আমেরিকার কোভিড উপদেষ্টা অ্যান্টনি ফৌজি বলেন, “যাঁদের শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা কম, তাঁদের বাদে আর কাউকে এখন বুস্টার ডোজ দেওয়া হবে না। আমরা খুব সতর্কভাবে পরীক্ষা করে দেখব, কাদের বুস্টার ডোজ প্রয়োজন।” আমেরিকায় বিনামূল্যে কোভিড ভ্যাকসিন দেওয়া হচ্ছে। ভ্যাকসিনের কোনও অভাব নেই। তা সত্ত্বেও জনসংখ্যার মাত্র অর্ধেককে টিকা দেওয়া গিয়েছে।

গত মে মাসে মার্কিন স্বাস্থ্যকর্তারা বলেছিলেন, আমেরিকার তিন ভ্যাকসিন যথা মোডার্না, ফাইজার-বায়োএনটেক ও জনসন অ্যান্ড জনসনের ভ্যাকসিন কিছুটা হলেও ডেল্টা ভ্যারিয়ান্টের সংক্রমণ রুখতে পারে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও বাড়াতে পারে। অ্যান্থনি ফৌজি বলেছিলেন, ডবল ভ্যারিয়ান্ট স্ট্রেনের জিনোম সিকুয়েন্স করে বা জিনের বিন্যাস বের করে পরীক্ষা করে দেখা গিয়েছে, আরএনএ ভ্যাকসিন (মেসেঞ্জার আরএনএ) আংশিকভাবে হলেও এই ভাইরাল স্ট্রেন নিষ্ক্রিয় করতে পারে। সেক্ষেত্রে মোডার্না ও ফাইজারের ভ্যাকসিন আরএনএ টেকনোলজিতে তৈরি। ভাইরাসের স্পাইক প্রোটিনের বিভাজন আটকানোর ক্ষমতা আছে এই দুই ভ্যাকসিনে।

বাস্তবে ডেল্টা ভ্যারিয়ান্টকে আটকাতে পারেনি আমেরিকা। সেজন্যই বুস্টার ডোজ দেওয়ার কথা ভেবেছেন মার্কিন বিশেষজ্ঞরা। খবর দ্য ওয়ালের/এনবিএস/২০২১/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *