ঢাকা, বুধবার ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১০:৪০ অপরাহ্ন
বাবাকে ‘খুন’ করেও মুক্তি পেল কিশোরী, যৌন নির্যাতন থেকে বাঁচতে ছুরি বসিয়েছিল সে
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

বাবাকে ‘খুন’ করেও মুক্তি পেল কিশোরী, যৌন নির্যাতন থেকে বাঁচতে ছুরি বসিয়েছিল সে

বাবাকে ‘খুন করার’ (murder) মামলা থেকে এক নাবালিকাকে রেহাই দিল পুলিশ। দিন কয়েক আগে তামিলনাড়ুর ভিল্লুপুরম জেলার ঘটনায় তদন্তের পরে পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনাটি ‘আত্মরক্ষার্থে খুনের’ আওতায় পড়ছে।


পুলিশ জানিয়েছে, তদন্তে জানা গিয়েছে, যৌন হেনস্থা থেকে আত্মরক্ষা করার জন্যই বাবাকে আঘাত করেছিল ১৭ বছরের মেয়েটি। তার ফলেই মৃত্যু হয়েছে তার চল্লিশ বছর বয়সি বাবার। এটি ভারতীয় সংবিধান বিধির ১০০ নম্বর ধারার আওতায় পড়ছে, আত্মরক্ষার্থে খুন।

কয়েক দিন আগের ঘটনা। হঠাৎই বছর সতেরোর মেয়েটি তার প্রতিবেশীদের জানায় সে বাড়ি এসে দেখেছে তার বাবাকে কেউ ছুরি মেরেছে। পুলিশি তদন্ত শুরু হয় নিয়ম মেনে। তাতেই সামনে আসে, অভিযোগকারিণী মেয়েই ছুরি মেরেছে বাবাকে।

জেরার মুখে মেয়েটি পুলিশের কাছে স্বীকার করে, তার বাবা মদ খেয়ে প্রায়ই মারধর করত তাকে। যৌন নির্যাতনও চলত। সেদিনও তেমনটাই ঘটেছিল, তাতেই বাবার ওপর পাল্টা চড়াও হয় সে। তার ছুরির ঘায়ে মারা যায় বাবা। তার মা কয়েক বছর আগেই মারা গিয়েছেন। দিদি কাজ করেন চেন্নাইয়ের একটি দোকানে, বাড়ি থেকে ১৬০ কিলোমিটার দূরে। ফলে বাড়িতে বাবার সঙ্গে একাই থাকত ওই ছোট মেয়ে।

পুলিশ জানিয়েছে, আইনজ্ঞদের সঙ্গে আলোচনা করে মেয়েটিকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে। তাকে এখন একটি হোমে রাখা হয়েছে, ভাল আছে সে। খবর পার্সটুডে/এনবিএস/২০২১/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *