ঢাকা, সোমবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:৫১ পূর্বাহ্ন
পাকিস্তানের পাশাপাশি চীনেও সার্জিক্যাল স্ট্রাইক করুন’
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

পাকিস্তানের পাশাপাশি চীনেও সার্জিক্যাল স্ট্রাইক করুন’


ভারতের মহারাষ্ট্রের শিবসেনা নেতা সঞ্জয় রাউত এমপি কেন্দ্রীয় সরকারকে পাকিস্তানের পাশাপাশি চীনেও সার্জিক্যাল স্ট্রাইক করার পরামর্শ দিয়েছেন। তিনি আজ (সোমবার) এ সংক্রান্ত মন্তব্য করেছেন।

আজ শিবসেনা নেতা সঞ্জয় রাউত জম্মু-কাশ্মীরে সাম্প্রতিক সন্ত্রাসী হামলার বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে কেন্দ্রীয় সরকারকে টার্গেট করেন। সঞ্জয় রাউত বলেন, জম্মু-কাশ্মীরে অভিবাসীদের টার্গেট করা হচ্ছে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের উচিত জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখের বর্তমান পরিস্থিতি সম্পর্কে একটি বিবৃতি দিয়ে দেশকে জানানো।

তিনি বলেন, ‘জম্মু-কাশ্মীরের পরিস্থিতি উদ্বেগজনক! বিহারী অভিবাসী, কাশ্মীরি পণ্ডিত এবং শিখদের টার্গেট করা হচ্ছে। যখন পাকিস্তানের কথা আসে, আপনারা সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের কথা বলেন। তাহলে এটা চীনের জন্যও করা উচিত। জম্মু-কাশ্মীর এবং লাদাখের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে  প্রতিরক্ষামন্ত্রী বা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর উচিত দেশবাসীকে জানানো।’     

জম্মু-কাশ্মীরে গত ১৫ দিনে, গেরিলারা ১৩ জন বেসামরিক ব্যক্তিকে টার্গেট করেছে। এরফলে প্রাণের ভয়ে অন্য রাজ্যের শ্রমিক এবং কর্মীরা কাশ্মীর ত্যাগ করতে শুরু করেছেন।

গতকাল (রোববার) কুলগাম জেলায় বন্দুকধারীদের গুলিতে দু’জন বিহারী শ্রমিক নিহত হয়েছেন। শনিবার পুলওয়ামা ও শ্রীনগরে বিহার ও উত্তর   প্রদেশের বাসিন্দা দু’জনকে হত্যা করা হয়েছে। এসব ঘটনাকে কেন্দ্র করে অন্য রাজ্যের শ্রমিক ও কর্মীরা কাশ্মীর ত্যাগ করা শুরু করেছে। এরইমধ্যে জম্মু রেল ষ্টেশন ও ফুটপাথে ভিন রাজ্যের বেশ কিছু শ্রমিক নিজ নিজ রাজ্যে যাওয়ার ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করতে দেখা গেছে বলে আজ (সোমবার) হিন্দি গণমাধ্যম ‘আজতক’ জানিয়েছে। 

বিহারের মুখ্যমন্ত্রী ও জেডিউ প্রধান নীতীশ কুমার কাশ্মীরে বিহারের মানুষজনের উপর হামলার বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। তিনি জম্মু-কাশ্মীরের লেফটেন্যান্ট গভর্নর মনোজ সিনহার সঙ্গে ওই বিষয়ে কথাও বলেছেন। এ ছাড়া নিহতদের পরিবারকে দুই লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছে।   

একইসঙ্গে বিহারের ‘আরজেডি’ নেতা তেজস্বী যাদব ওই ঘটনায় বিহার সরকারের সমালোচনা করেছেন। তিনি বলেন, সরকারের ব্যর্থতার জন্য  জীবিকার জন্য বাইরে যেয়ে সন্ত্রাসীদের হাতে নিহতদের মাত্র ২ লাখ টাকা করে দেওয়া হচ্ছে এটা আশ্চর্যের! অন্যায়ের পাশাপাশি ধ্বংস নীতিশ সরকারের মূল মন্ত্র বলেও আজ আরজেডি নেতা তেজস্বী যাদব মন্তব্য করেন। বিহারে ‘জেডিইউ’ এবং ‘বিজেপি’ জোট সরকার ক্ষমতায় রয়েছে।  

অন্যদিকে, রাজ্যের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী জিতনরাম মাঝি’র দাবি, ১৫ দিনের জন্য বিহারীদের কাছে কাশ্মীর তুলে দিলে তারা সব ঠিক করে দেবেন। খবর পার্সটুডে/এনবিএস২০২১/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি: