ঢাকা, বুধবার ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:২১ অপরাহ্ন
‘বাচ্চাদের সঙ্গে ছুটি কাটাতে মলদ্বীপ গেছিলাম’, মন্ত্রীর আক্রমণের জবাবে সমীর ওয়াংখেড়ে
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

‘বাচ্চাদের সঙ্গে ছুটি কাটাতে মলদ্বীপ গেছিলাম’, মন্ত্রীর আক্রমণের জবাবে সমীর ওয়াংখেড়ে

গত ৩ সপ্তাহ ধরে শাহরুখের ছেলে আরিয়ান খানের নাম বারবারই সংবাদমাধ্যমেক শীর্ষে এসেছে মাদক-কাণ্ডে। এখনও জেলেই আছেন আরিয়ান। তাঁর জামিন হবে কি হবে না, সেইদিকেই নজর গোটা দেশের। কিন্ত আরিয়ানের সঙ্গেই যিনি চর্চিত হচ্ছেন প্রায় একই মাত্রায়, তিনি হলেন সমীর ওয়াংখেড়ে (samir wankhede)। নারকোটিক্স কনট্রোল ব্যুরো বা এনসিবি-র এই তরুণ অফিসারই মুম্বই থেকে গোয়াগামী প্রমোদতরীরে গোপন অভিযান চালিয়ে গ্রেফতার করেন আরিয়ানকে।


সমীরের অভিযোগ, তিনি নিজের কাজ করতে গিয়ে বারবার বিপাকে পড়ছেন এবার মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী নবাব মালিক তাঁকে ও তাঁর পরিবারকে আক্রমণ করেছেন বলে দাবি করেছেন তিনি। জানিয়েছেন, এই নিয়ে আইনি পদক্ষেপও করবেন তিনি।


গতকালই মহারাষ্ট্রের ন্যাশনালিস্ট কংগ্রেস দলের (‌এনসিপি)‌ নেতা তথা সে রাজ্যের মন্ত্রী নবাব মালিক অভিযোগ তোলেন, প্যানডেমিকের সময়ে সমীর ওয়াংখেড়ে মলদ্বীপে ছিলেন। সেই সময় বহু বলিউড তারকাও ছুটি কাটাচ্ছিলেন সেখানে। সেখান থেকে সমীর টাকা আদায় করেন বলে দাবি নবাবের। নবাব মালিকের আরও অভিযোগ, সমীর ওয়াংখেড়ে দুবাই থেকেও টাকা আদায় করেছেন।

এর জবাবে সমীর ওয়াংখেড়ে বলেন, “মন্ত্রী মিথ্যা কথা বলছেন। আমি আমার পরিবার, বাচ্চাদের সঙ্গে মলদ্বীপে ছুটি কাটাতে গিয়েছিলাম এবং সে বিষয়ে আমি আমার কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় অনুমতিও নিয়ে গিয়েছিলাম। আমি সেখানে কারও সঙ্গে দেখা করিনি। গত ডিসেম্বরে আমি মুম্বইতেই ছিলাম, মন্ত্রী সেই সময় বলছেন আমি নাকি দুবাইতে ছিলাম।”

সমীর ওয়াংখেড়ে জানিয়েছেন, তিনি কোনও আপস না করে নিজের কাজ করছেন, সত্যের পথে অনুসন্ধান করছেন বলেই তাঁকে এসব আক্রমণের মুখোমুখি হতে হচ্ছে। এমনকি তাঁর দাবি, তাঁর পরিবারকেও ক্রমাগত আক্রমণ করা হচ্ছে। তাঁর বোন, বাবা সকলেই সমস্যার শিকার। “আমি যথাযথ আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করব কারণ মন্ত্রী অনেক ভুল অভিযোগ করেছেন। আমি আমার ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে অনুমতি নেওয়ার পরে আইনি সহায়তা নেব।”– বলেন ওয়াংখেড়ে।


মন্ত্রীর অভিযোগ, কিছু মানুষকে মিথ্যা মামলায় জড়ানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। সমীর ওয়াংখেড়ের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট খতিয়ে দেখা হোক, তবেই বোঝা যাবে এনসিবির মাদক মামলা কতটা ভিত্তিহীন, দাবি করেছেন নবাব মালিক। তিনি বলেন, ‌”প্যানডেমিকের সময়ে পুরো ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি মলদ্বীপে ছিল। সেই সময়ই সমীর ওয়াংখেড়ে তাঁর পরিবারকে নিয়ে মলদ্বীপ ও দুবাইতে কি করছিলেন? সব টাকা আদায় করা হয়েছে মলদ্বীপ ও দুবাইতে। আমি শীঘ্রই সেইসব ছবি প্রকাশ করব। খবর দ্য ওয়ালের /২০২১/এনবিএস/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি: