ঢাকা, বুধবার ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:১৭ অপরাহ্ন
২৬০ আক্রান্তের মধ্যে ১৬৩ জনের দুটি ডোজ নেওয়া, কারণ খুঁজছে চিন্তিত পুরসভা
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

২৬০ আক্রান্তের মধ্যে ১৬৩ জনের দুটি ডোজ নেওয়া, কারণ খুঁজছে চিন্তিত পুরসভা

 পুজোর পরই রিপোর্ট ঘিরে কপালে চিন্তার ভাঁজ প্রশাসনের।‌ টিকার দুটি ডোজ নেওয়া থাকলে করোনা (Covid19) হবে না, এমনটা ধরে নিয়েছিলেন বহু মানুষ। কিন্তু তাঁদের ধারণা যে কতটা ভুল, হাতেনাতে প্রমাণ মিলল। পুজোয় করোনা বিধি না মেনে বেপরোয়া ভিড় বাড়িয়ে তুলল করোনা সংক্রমণ। যেকারণে চিন্তায় কলকাতা পুরসভা। বৃহস্পতিবার পুরসভার দেওয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় শুধুমাত্র কলকাতায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ২৬০ জন, যার মধ্যে ৬০ শতাংশেরও বেশি মানুষের টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়া আছে। এই রিপোর্ট নতুন করে উদ্বেগ বাড়াচ্ছে।


এদিন কলকাতা পুরসভার রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে গত ২৪ ঘণ্টায় শুধু কলকাতায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ২৬০ জন। এর মধ্যে ২০১ জন উপসর্গবিহীন ও ৫৯ জনের শরীরে রয়েছে করোনার উপসর্গ। এই আক্রান্তদের মধ্যে শুধুমাত্র একটি ডোজ় পেয়েছেন এমন রোগীর সংখ্যা ১৯ জন। যার মধ্যে ১২ জন উপসর্গবিহীন, ৭ জনের উপসর্গ রয়েছে। আর দ্বিতীয় ডোজ় নেওয়া হয়ে গিয়েছে এমন আক্রান্তের সংখ্যা ১৬৩ জন, যার মধ্যে ১২০ জন উপসর্গবিহীন ও ৪৩ জনের উপসর্গ রয়েছে। ভ্যাকসিন আদৌ নেওয়া হয়নি, এমন আক্রান্তের সংখ্যা ৩৭। ২৬০ জনের মধ্যে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ১৯ জন।


এদিন পুর প্রশাসক মণ্ডলীর সদস্য অতীন ঘোষ রিপোর্ট প্রসঙ্গে উদ্বেগ প্রকাশ করেন। তিনি জানিয়েছেন, পরিস্থিতিতে উদ্বেগে তাঁরা। পুজোর মরশুমে যে ভাবে ভিড় বেড়েছে, তার জেরেই ক্রমশ বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। যেকারণেই সংশ্লিষ্ট বিভাগের কর্মীদের ছুটি বাতিল করা হয়েছে।

পুজোর সময় নমুনা পরীক্ষার হার কমে গিয়েছিল। তাই আপাত দৃষ্টিতে করোনা আক্রান্তের হার কমেছে বলে মনে করা হলেও পুজো মিটতেই সামনে আসতে শুরু করেছে আসল ছবিটা। ফের বাড়ছে পজিটিভিটির হার। বুধবার রাজ্যে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮৬৭। একদিনে সবচেয়ে করোনা আক্রান্ত কলকাতায়। যা রীতিমতো উদ্বেগের। মোট করোনা আক্রান্তের ২৪৪ জনই ছিল কলকাতার। আর আজ সেই সংখ্যাই বেড়ে হয়েছে ২৬৩। বুধবার পজিটিভিটি রেট ছিল ২.৪৩ শতাংশ। খবর দ্য ওয়ালের /২০২১/এনবিএস/একে

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি: