ঢাকা, বুধবার ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:৪০ অপরাহ্ন
কাশ্মীরে ২ পৃথক এনকাউন্টারে খতম কমান্ডার সহ ৫ সন্ত্রাসবাদী, গুলির লড়াই চলছে
এনবিএস ওয়েবডেস্ক :

কাশ্মীরে ২ পৃথক এনকাউন্টারে খতম কমান্ডার সহ ৫ সন্ত্রাসবাদী, গুলির লড়াই চলছে

 কাশ্মীরে (kashmir) জঙ্গি দমনে (campaign) বড় সাফল্য নিরাপত্তাবাহিনীর (terrorism)। বুধবার সন্ধ্যায় জম্মু ও কাশ্মীরের কুলগাম জেলার পোম্বাই ও গোপালপোরা গ্রামে নিরাপত্তাবাহিনীর সঙ্গে পৃথক সংঘর্ষে (encounter) খতম হল ৫ সন্ত্রাসবাদী (terrorist)। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত পুলিশ ও নিরাপত্তাবাহিনীর অভিযান চলছে বলে জানিয়েছেন কাশ্মীর পুলিশের আইজি বিজয় কুমার। কাশ্মীর জোন পুলিশের ট্যুইটার হ্যান্ডলে সাম্প্রতিক আপডেট দিয়ে জানানো হয়েছে, নিষিদ্ধ ঘোষিত সন্ত্রাসবাদী গোষ্ঠী টিআরএফের কমান্ডার আফাক সিকান্দার গোপালপোরার এনকাউন্টারে প্রাণ হারিয়েছে। দি রেজিস্ট্যান্স ফোর্স বা টিআরএফের পিছনে লস্কর-ই-তৈবাই আছে বলে নিরাপত্তা এজেন্সিগুলির দাবি।


কাশ্মীর পুলিশ জানিয়েছে, তিন অজ্ঞাতপরিচয় জঙ্গি নিহত হয়েছে পোম্বাইয়ে, বাকি দুজন গোপালপোরায়। আরও সন্ত্রাসবাদীর গা ঢাকা দিয়ে থাকার অনুমান করে তল্লাসি অভিযান বহাল রয়েছে। নিহত সন্ত্রাসবাদীদের হেফাজত থেকে প্রচুর আইইডি উদ্ধার হয়েছে বলে খবর। আজ বিকালে দক্ষিণ কাশ্মীরের পুলিশ কর্তাদের উদ্ধৃত করে প্রথমে ২-৩ জন জঙ্গির আটকে পড়ার খবর আসে। এলাকা ঘিরে ফেলে তল্লাশির মধ্যেই শুরু হয় এনকাউন্টার।

এদিকে পুলওয়ামা পুলিশ ও নিরাপত্তাবাহিনীর জালে ধরা পড়েছে দুই লস্কর সহযোগী। নাকা তল্লাশি চলাকালে আমির বশির ও মুখতার ভাট নামে দুজন গ্রেফতার হয়। তাদের কাছ থেকেও আইইডি মিলেছে।


আজ সকালে উরি সেক্টরে পাকিস্তানি সেনার মদতপুষ্ট জঙ্গিদের অনুপ্রবেশের চেষ্টা ব্যর্থ করে দেয় ভারতীয় সেনাবাহিনী। আলাদা একটি ঘটনায় বারামুল্লার পালহালান এলাকায় গ্রেনেড হামলায় জখম হন দুই সিআরপিএফ জওয়ান ও কয়েকজন সাধারণ নাগরিক। খবর দ্য ওয়ালের/২০২১/এনবিএস/একে 

ইউটিউবে এনবিএস-এর সব খবর দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি: