ঢাকা, বুধবার, জুলাই ২৪, ২০২৪ | ৯ শ্রাবণ ১৪৩১
Logo
logo

রাইসির হেলিকপ্টারের অবস্থান শনাক্ত, উদ্ধারে সহযোগিতা করবে বিভিন্ন দেশ


এনবিএস ওয়েবডেস্ক   প্রকাশিত:  ২০ মে, ২০২৪, ০২:০৫ পিএম

রাইসির হেলিকপ্টারের অবস্থান শনাক্ত, উদ্ধারে সহযোগিতা করবে বিভিন্ন দেশ

 রাইসির হেলিকপ্টারের অবস্থান শনাক্ত, উদ্ধারে সহযোগিতা করবে বিভিন্ন দেশ

সিএনএন জানায়, ইরানি কর্মকর্তারা প্রেসিডেন্ট রাইসির হেলিকপ্টার দুর্ঘটনাস্থলের সঠিক অবস্থান শনাক্ত করেছেন। তবে প্রচণ্ড দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছানোই এখন বড় চ্যালেঞ্জ।

দেশটির রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আইআরএনএ ওই অঞ্চলের একজন সামরিক কমান্ডারের বরাত দিয়ে জানায়, ইব্রাহিম রাইসিকে বহনকারী হেলিকপ্টারটির দুর্ঘটনাস্থলের সঠিক অবস্থানের দিকে যাচ্ছে সামরিক ক্রুরা।

পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশের ইসলামিক রেভল্যুশনারি গার্ডের এই কর্পস কমান্ডার জানান, দুর্ঘটনার পর হেলিকপ্টারের একজন ক্রুর মোবাইল ফোন থেকে একটি সংকেত পাওয়া গেছে। সামরিক বাহিনী দুর্ঘটনাস্থলের দিকে অগ্রসর হচ্ছে এবং কিছু ভালো খবর পাওয়ার আশা করছে।

উদ্ধার অভিযানে সহযোগিতা করতে এগিয়ে এসেছে তুরস্ক, রাশিয়া এবং ইউরোপীয় কমিশন।

তুরস্কের দুর্যোগ ও জরুরি ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয় রোববার জানিয়েছে, ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির বিধ্বস্ত হেলিকপ্টারের সন্ধানে ইরান তুরস্কের কাছে সহায়তার অনুরোধ করেছে। ইরান একটি নাইট ভিশন অনুসন্ধান এবং উদ্ধার হেলিকপ্টার চেয়েছে। সূত্র: সিএনএন, আল-জাজিরা

মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, তুরস্ক ছয়টি যানবাহন এবং ৩২ জন পর্বতারোহী অনুসন্ধান ও উদ্ধার কর্মী ইরানে পাঠাচ্ছে।

রাশিয়া নিখোঁজ হেলিকপ্টারটির সন্ধানে এবং ঘটনার কারণ অনুসন্ধানে সমস্ত প্রয়োজনীয় সহায়তা দিতে প্রস্তুত, দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন মুখপাত্রকে উদ্ধৃত করে জানিয়েছে " আরআইএ।

ইউরোপীয় কমিশন অনুসন্ধানে সহায়তা করার জন্য স্যাটেলাইট ম্যাপিং সক্রিয় করেছে। ইরানের অনুরোধে তারা এ পদক্ষেপ নিয়েছে।

ইরানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আহমাদ ওয়াহিদি জানিয়েছেন, প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসিকে বহনকারী হেলিকপ্টার পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশের উত্তর-পশ্চিমে জোলফা এলাকায় দুর্ঘটনার শিকার হয়।

হেলিকপ্টারটিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ান ও পূর্ব আজারবাইজানের গভর্নর মালেক রাহমাতিসহ আরও কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ছিলেন। সীমান্ত এলাকায় আজারবাইজানের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে যৌথভাবে একটি বাঁধ উদ্বোধনের পর তিনি শহরে ফিরছিলেন। সূত্র: ওয়ান ইন্ডিয়া বাংলা

এনবিএস/ওডে/সি