ঢাকা, শুক্রবার, জুন ১৪, ২০২৪ | ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
Logo
logo

রিশাদ দুর্দান্ত ব্যাটে-বলে একাই হারিয়ে দিলেন গাজী গ্রুপকে


এনবিএস ওয়েবডেস্ক   প্রকাশিত:  ২২ এপ্রিল, ২০২৪, ১০:০৪ পিএম

রিশাদ দুর্দান্ত ব্যাটে-বলে একাই হারিয়ে দিলেন গাজী গ্রুপকে

রিশাদ দুর্দান্ত ব্যাটে-বলে একাই হারিয়ে দিলেন গাজী গ্রুপকে

ঢাকা প্রিমিয়ার ক্রিকেট সুপার লিগে ঝলক দেখালেন রিশাদ হোসেন। সোমবার (২২ এপ্রিল) বিকেএসপির ৩ নম্বর মাঠে গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সের বিপক্ষে ব্যাট ও বল হাতে দারুণভাবে জ্বলে উঠলেন তিনি। সেই সঙ্গে যেন জানিয়ে দিলেন, একজন অলরাউন্ডার হওয়ার সব গুণই আছে তার মধ্যে। লো স্কোরিং ম্যাচে রিশাদের চৌকশ নৈপুণ্যে ১৩ রানের জয় পেয়েছে শাইনপুকুর।

আগে ব্যাট করতে নেমে ১৩৮ রানে গুটিয়ে যায় শাইনপুকুর। সেখানে রিশাদ হোসেনের অবদান ছিল ৩৩। ২৬ বলে ৪টি বিশাল ছক্কা আর এক বাউন্ডারিতে ওই ইনিংস সাজান তিনি। তার আগে ওপেনার তানজিদ হাসান তামিম খেলেন ৫১ বলে ৪২ রানের ইনিংস।

গাজী গ্রুপের দুই তরুণ বোলার আব্দুল গাফফার সাকলাইন ও হুম্মা হাবিব যথাক্রমে ২১ ও ২৩ রান দিয়ে সমান ৩টি করে উইকেটের পতন ঘটিয়ে শাইনপুকুরকে ১৩৮ রানে গুটিয়ে দেন। ওই সামান্য পুঁজি নিয়েও শেষ পর্যন্ত জিতে যায় শাইনপুকুর। সে জয়ের রূপকার-স্থপতি রিশাদ। ৮ ওভারে ৩১ রানে ৪ উইকেট দখল করেন এই লেগস্পিনার।

গাজী গ্রুপের যে মারকুটে ওপেনার আগের খেলায় শতরান করেছিলেন এবং আজও চার ও ছক্কার ফুলঝুরিতে শাইনপুকুরের বোলারদের তুলোধুনো করছিলেন। সেই হাবিবুর রহমান রিশাদের বলেই ফিরে যান। আউট হওয়ার আগে ১৮ বলে সমান ৪টি করে ছক্কা ও বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ঝড় তুলছিলেন হাবিবুর রহমান সোহান। তাকে ফিরিয়ে ধ্বংসযজ্ঞ শুরু রিশাদের।

পরে আরও ৩ ব্যাটার সাব্বির হোসেন শিকদার, প্রীতম, কুমার ও মঈন খানও আউট হন লেস্পিনার রিশাদের ঘূর্ণিতে। সাথে দুই বাঁহাতি স্পিনার অভিজ্ঞ আরাফাত সানি ৩টি ও হাসান মুরাদ ২টি নিলে মাত্র ১২৫ রানে অলআউট হয় গাজী গ্রুপ। ব্যাট হাতে ২৬ বলে ৩৩ রানের পর বোলিংয়ে ৩১ রানে ৪ উইকেট। ম্যাচ জেতানো অলরাউন্ডিং পারফরম্যান্সের জন্য ম্যাচসেরার পুরস্কার উঠেছে শাইন পুকুরের রিশাদের হাতেই।সূত্র: ওয়ান ইন্ডিয়া বাংলা

এনবিএস/ওডে/সি