সেপ্টেম্বরে চালু হচ্ছে রামগড় স্থলবন্দরের  ইমিগ্রেশন কার্যক্রম।  ২৯ আগস্ট সোমবার নির্মাণাধীন প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল পরিদর্শন করতে এসে নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ মোস্তফা কামাল একথা বলেন। 

রামগড় পৌরসভার মহামুনি এলাকায় রামগড় স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন চালুর লক্ষ্যে আন্তর্জাতিক মানের প্যাসেঞ্জার টার্মিনালের নির্মাণ কাজ চলতি মাসের গোড়ার দিকে শুরু হয়।ইতিমধ্যেই নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। 

সোমবার নৌপরিবহন মন্ত্রনালয়ের সচিব রামগড় পৌরভবনে সংক্ষিপ্ত বৈঠক শেষে নির্মানাধীন প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল পরিদর্শন করেন। এ সময় তিনি কাজের অগ্রগতি সহ অন্যান্য বিষয়ে খোঁজখবর নেন।

পরে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, ইমিগ্রেশন চালুর জন্য প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল প্রস্তুত করা হয়েছে।  এখন সংশ্লিষ্ট বিভাগগুলো তাদের প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করলে, সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহে ইমিগ্রেশন কার্যক্রম চালু করা যাবে। অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় এই কার্যক্রম চালুর দিনক্ষন ঠিক করা হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন রামগড় স্থলবন্দর প্রকল্পের পরিচালক মোঃ সরোয়ার আলম,রামগড় উপজেলা চেয়ারম্যান বিশ্ব প্রদীপ কুমার কারবারি, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খোন্দকার মোঃ ইখতিয়ার উদ্দিন আরাফাত, রামগড় থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মিজানুর রহমান।  news