সিরিয়ার তেল চুরির ব্যাপারে আমেরিকাকে হুঁশিয়ারি দিল চীন

প্রকাশ্য দিবালোকে সিরিয়ার তেল সম্পদ চুরি করার ব্যাপারে আমেরিকাকে হুঁশিয়ার করে দিয়েছে চীন। চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ঝাও লি জিয়ান সিরিয়ার তেল চুরির তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেছেন, সিরিয়ার বিরুদ্ধে আমেরিকা ও তার মিত্রদের চরম বিদ্বেষী আচরণের পাশাপাশি আমেরিকা সিরিয়ার জনগণের সম্পদ প্রকাশ্যে লুট করে নিয়ে যাচ্ছে।

মার্কিন সন্ত্রাসী সেনাবাহিনীর পাশাপাশি তাদের ভাড়াটে সেনারা সিরিয়ার উত্তর ও উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় বিস্তীর্ণ এলাকা দখল করে রেখেছে। এই এলাকায় সিরিয়ার বেশিরভাগ তেল কূপ অবস্থিত।

চীনা মুখপাত্র বলেন, আমেরিকা সিরিয়ার জনগণের সম্পদ অবরোধ করে রেখেছে এবং প্রকাশ্য দিবালোকে এসব সম্পদ লুটপাট করে নিয়ে যাচ্ছে; এর ফলে সিরিয়ায় মানবিক সংকট তীব্রতর হয়েছে।

ঝাও লি জিয়ান বলেন, সিরিয়ার ওপর আমেরিকার নিষেধাজ্ঞা আরোপ এবং দেশটির মূল্যবান সম্পদ লুট করে নেয়ার কারণে সিরিয়ার জনগণ কষ্ট পাচ্ছে। তিনি আন্তর্জাতিক আইনের পরিপন্থি এই দখলদারিত্বের অবসান ঘটানোর জন্য ওয়াশিংটনের প্রতি আহ্বান জানান।

উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী দায়েশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করার অজুহাতে ২০১৫ সালে সিরিয়ায় সেনা মোতায়েন করে আমেরিকা। সিরিয়া সরকার বলে এসেছে, দেশটির উত্তর ও উত্তর-পূর্ব অঞ্চলে দখলদার মার্কিন সেনা মোতায়েন করে রাখার একমাত্র উদ্দেশ্য দেশটির তেল সম্পদ লুট করা। দেশটি জাতিসংঘের অনুমোদনবিহীন এই সেনা উপস্থিতির অবসান ঘটানোর দাবি জানিয়ে এসেছে।।খবর পার্সটুডে/এনবিএস/২০২২/একে

news