পেলোসির তাইওয়ান সফর মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে তলব করলো চীন

বেইজিংয়ে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে তলব করেছে চীন। মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার এবং দেশটির তৃতীয় সর্বোচ্চ পদাধিকারী ন্যান্সি পেলোসির বিতর্কিত তাইওয়ান সফরের প্রতিবাদ জানাতে রাষ্ট্রদূত নিকোলাস বার্নসকে চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয়।

চীনা ভাইস ফরেন মিনিস্টার শেই ফেং গতকাল (মঙ্গলবার) নিকোলাস বার্নসকে তলব করে পেলোসির সফরের বিরুদ্ধে চীনের পক্ষ থেকে চরম আপত্তি ও প্রতিবাদ জানান।

পেলোসিকে বহনকারী বিমান তাইপে আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণের পরপরই মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে তলব করা হয়। চীনের রাষ্ট্র পরিচালিত সংসবাদ সংস্থা শিনহুয়া এ খবর দিয়েছে।

ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরকে আগুন নিয়ে খেলার সঙ্গে তুলনা করেন শেই ফেং। তিনি বলেন, “এই সফর অত্যন্ত জঘন্য প্রকৃতির এবং এর পরিণতিও হবে খুব মারাত্মক। চীন মোটেই অলস বসে থাকবে না।” 

শেই ফেং বলেন, ন্যান্সি পেলোসির এই সফর আমেরিকা-চীন সম্পর্কের ওপর মারাত্মক প্রভাব ফেলেছে এবং এ সফরের মাধ্যমে চীনের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব এবং ভৌগোলিক অখণ্ডতার ওপর মারাত্মক আঘাত হানা হয়েছে। 

চীনের শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তা মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে আরো বলেন, ভুল পথে আমেরিকার আর মোটেই এগিয়ে যাওয়া উচিত হবে না এবং এ অঞ্চলের পরিস্থিতিকে আরো উত্তেজনাপূর্ণ করা ঠিক হবে না। আমেরিকার এ ধরণের ভুল পথে হাঁটার কারণে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক এমন খারাপ হবে যা ঠিক করা কঠিন হবে।

শেই ফেঙ জোর দিয়ে বলেন, “তাইওয়ান তাইওয়ানই, তাইওয়ান চীনের অবিচ্ছেদ্য অংশ এবং চূড়ান্ত পরিণতিতে এটি মূল ভূখণ্ডের সঙ্গেই যুক্ত হবে।খবর পার্সটুডে /এনবিএস/২০২২/একে news