চীনকে ভাঙার তৎপরতা সহ্য করা হবে না: ওয়াশিংটনকে বেইজিং

বেইজিং আজ (সোমবার) ঘোষণা করেছে, তারা এক ও অখণ্ড চীনকে বিভাজনের কোনো তৎপরতা সহ্য করবে না এবং তা মোকাবেলায় প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের অধিকার তাদের রয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সাম্প্রতিক মন্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় এ কথা বলেছেন চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মাও নিং।

বাইডেন গতকাল এক সাক্ষাতকারে দাবি করেছেন, চীন হামলা চালালে যুক্তরাষ্ট্র তাইওয়ানকে রক্ষা করবে।  

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মাও নিং এর প্রতিক্রিয়ায় বলেন, বাইডেনের বক্তব্য, মার্কিন নীতির চরম লঙ্ঘন।  যুক্তরাষ্ট্র তাইওয়ানকে স্বাধীন হতে সাহায্য করবে না বলে আমেরিকা যে প্রতিশ্রুতির দিয়েছে সেটারও বড় লঙ্ঘন এই বক্তব্য। এই বক্তব্য তাইওয়ানের বিচ্ছিন্নতাবাদীদের ভুল বার্তা দিচ্ছে বলেও দাবি করেছেন চীনা মুখপাত্র।

‌আমেরিকা অখণ্ড চীনকে বিভাজিত করার চেষ্টা করলে চীনও বসে থাকবে না, এমন হুঁশিয়ারিও দেন চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র।

এক চীন নীতি অনুসারে তাইওয়ান চীনের অংশ। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সব সময় এই নীতি অনুসরণের দাবি করে আসছে। এরই অংশ হিসেবে ১৯৭৯ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে তাইওয়ানের সাথে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করে যুক্তরাষ্ট্র। বাহ্যত তাইওয়ানের সঙ্গে ওয়াশিংটনের কোনো কূটনৈতিক সম্পর্কও নেই।

কিন্তু বহু দিন ধরেই ওয়াশিংটন তাইওয়ানে অস্ত্র বিক্রি করে আসছে এবং তাইওয়ানকে চীনের বিরুদ্ধে উসকানি দিচ্ছে।খবর পার্সটুৃডে/এনবিএস/২০২২/একে news