দোনবাসে গণভোটের সমর্থনে রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে সমাবেশ

দোনেস্ক এবং লুহানস্কে গণভোটের সমর্থনে পুরো রাশিয়াজুড়ে সমাবেশ করেছেন দেশপ্রেমিক রুশ নাগরিকরা। এই গণভোটের মাধ্যমে চূড়ান্ত হবে দোনবাস অঞ্চলটি রাশিয়ার সঙ্গে যুক্ত হবে নাকি আলাদা থাকবে।

রুশ সরকার এরইমধ্যে জানিয়ে দিয়েছে, দোনবাসের মানুষ যদি রাশিয়ার সঙ্গে যুক্ত হতে চায় তাহলে তারা ইউক্রেনের ওই অঞ্চলকে নিজেদের সঙ্গে যুক্ত করে নেবে। যদিও পশ্চিমা দেশগুলো এই গণভোটকে স্বীকৃতি না দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে।

রুশ সংসাবদ মাধ্যম আরটি জানিয়েছে, পশ্চিমাদের অভিযোগ ও হুমকিকে মোটেই পাত্তা দিচ্ছে না রাশিয়ার সরকার। দেশটির নাগরিকরাও দোনবাসের এই গণভোটকে স্বাগত জানিয়েছে। রাজধানী মস্কোতে গণভোটের প্রতি সমর্থন জানাতে হাজার হাজার মানুষ জড়ো হন। ক্রেমলিন থেকে সামান্য দূরে এই মানুষেরা রাশিয়ার পতাকা হাতে নিয়ে ওড়াতে থাকেন। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের সদস্যরাও এই র‍্যালিতে যোগ দেন। এছাড়া রুশ অভিনেতা ও পপ তারকাসহ অনেক সেলেব্রেটিকেও এসব সমাবেশে অংশ নিতে দেখা যায়। 

সমাবেশের আয়োজক অল রাশিয়া পিপলস ফ্রন্ট বা ওএনএফ জানিয়েছে, রুশদের এই সমাবেশ সমস্ত রুশ নাগরিকের মনোভাব প্রতিফলিত করেছে। এ ধরণের সমাবেশ রাশিয়ার অন্য শহরগুলোতেও দেখা যাচ্ছে।

গতকাল (শুক্রবার) দোনবাসের দুই অঞ্চলসহ ইউক্রেনের মোট ৪টি অঞ্চল রাশিয়ায় যোগদান করতে গণভোট আয়োজন করেছে। আগামি ৫ দিন ধরে চলবে এই ভোট। ২৭ সেপ্টেম্বর ভোট শেষ হবে।

এ অবস্থায় জাতিসংঘে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য তাৎপর্যপূর্ণ বলে পর্যবেক্ষকরা মনে করছেন।
খবর পার্সটুডে /এনবিএস/২০২২/একে news