দুর্নীতির দায়ে সিঙ্গাপুরের মন্ত্রী গ্রেপ্তার

তিনি হলেন দেশটির পরিবহন মন্ত্রী এস ইসওয়ারান। ১১ জুলাই তিনি গ্রেপ্তার হন। পরে জামিনে মুক্তি পান। গত শুক্রবার দেশটির দুর্নীতি তদন্ত ব্যুরো(সিপিআইবি) এক বিবৃতিতে একথা জানায়। 

দুর্নীতি নিয়ে নগর রাষ্ট্রটিতে বিরল উচ্চ পর্যায়ের এক তদন্তের পর তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। সিপিআইবি জানায়, এ তদন্তের ঘটনায় একই দিন দেশটির অন্যতম সেরা ধনী হোটেল ব্যবসায়ী ওং বেং সেংও গ্রেপ্তার হন। তিনিও জামিনে মুক্তি পান।

 বিশ্বের সবচেয়ে কম দুর্নীতির দেশ হিসেবে সিঙ্গাপুরের সুখ্যাতি রয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে এ তদন্ত সম্পর্কে বিস্তারিত জানায়নি তদন্ত ব্যুরো।


দুর্নীতি রোধের জন্য দেশটির মন্ত্রীদের বেতন অনেক বেশি ধরা হয়, যা বেসরকারি খাতের সর্বোচ্চ বেতনধারীদের চেয়ে বেশি। পরিবহন মন্ত্রীর বিরুদ্ধে দূর্নীতির তদন্তের সীমা বাড়ানো হয় যা মধ্যে ওং অন্তর্ভূক্ত ছিলেন। ওং হলেন হোটেল প্রপার্টিজ লিমিটেড(এইচপিএল) এমডি। এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকার বহু হোটেল ও অবকাশ যাপন কেন্দ্রের মালিক হল এ কোম্পানি। সিঙ্গাপুর শেয়ার বাজারে কোম্পানির শেয়ার রয়েছে। শুক্রবার ও্এংর কোম্পানি জানায়, সিপিআইবি গ্রেপ্তারের আগে তাকে নোটিশ দিয়েছিল। 

গ্রেপ্তারের আওতাধীন ব্যক্তিদের পাসপোর্ট সাধারণত জব্দ করা হয়। তবে ওংকে বিদেশ সফরে যাওয়ার আবেদন সিপিআইবি অনুমোদন করেছে। তবে প্রতিবার বিদেশ যাওয়ার জন্য তাকে অনুমতি গ্রহণ করতে হবে। তবে এজন্য তার জামিনের জামানত এক লাখ সিঙ্গাপুর ডলার বাড়ানো হয়েছে। ওং হলেন মালয়েশিয়ার নাগরিক। তবে সিঙ্গাপুরে তার স্থায়ীভাবে বসবাসের অনুমতি রয়েছে।

সিপিআইবি ইসওয়ারানকে গ্রেপ্তার করতে যাচ্ছে জানানোর পর সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রী লি হসিয়েন লুং তাকে ছুটিতে পাঠান। তিনি বলেন, তার কাছ থেকে সিপিআইবি ইসওয়ারানসহ অন্যদের জিঙ্গাসাবাদের অনুমোদন নিয়েছে। সূত্র: ওয়ান ইন্ডিয়া বাংলা

এনবিএস/ওডে/সি

news